যখন তখন ফল খাওয়া থেকে সাবধান!

গরমকাল মানেই ফলের মৌসুম। কত রকমের সুস্বাদু ফল যে এই সময় পাওয়া যায়, তা বলে শেষ করা যায় না। ফল কিন্তু খেলেই হবে না। খেতে হবে কিছু নিয়ম মেনে। তবেই এর গুণাগুণ সবচেয়ে বেশি পাওয়া যাবে। এমনটায় দাবি করেছেন ভারতীয় পুষ্টিবিদ নেহা রংলানি।

পুষ্টিবিদ নেহার মতে, রাতে ফলমূল খাওয়াই যায়। কিন্তু সেটা মাঝে মধ্যে করাই ভাল। নিয়মিতভাবে রাতে ফল খাওয়া মোটেও ভালো অভ্যাস নয়।

নেহার কথায়, ‘যখন আমরা সকাল থেকে বিকেলে খাওয়াদাওয়া করি, তখন কার্বোহাইড্রেট সমৃদ্ধ খাবার থেকে শর্করা আমাদের শরীর গ্রহণ করে। যতটা দরকার ততটা শর্করা ব্যবহৃত হয় কোষে।’

কিন্তু দিন যত এগোতে থাকে, তত আমাদের শক্তির প্রয়োজন কমতে থাকে। তাই ফলের শর্করা অব্যবহৃত হয়ে পরিণত হয় ফ্যাটে। কারণ লিভারে গ্লাইকোজেনভাণ্ডার তখন পূর্ণ।

ফলের দোকান ঘুরে খালি হাতে ফিরছেন ক্রেতা

পুষ্টিবিদ নেহার মতে, ফল খাওয়ার সেরা সময় দুপুরের খাবারের সঙ্গে সঙ্গে। তবে রাতে ফল খেতে তিনি নিষেধ করেন।

ফল দিয়ে তৈরি মিল্ক শেক পান করতেও বিরত থাকার পরামর্শ দেন নেহা। কারণ তার মতে, দুধের সঙ্গে মিশে ফ্রুট সুগার পেটে গ্যাস-সহ অন্যান্য সমস্যা তৈরি করতে পারে।

নেহা পরামর্শ দেন, ফলের তৈরি ডেজার্টের থেকে সরাসরি ফলের টুকরো খাওয়া ভালো। কারণ পরিপূর্ণ আহারের পর ফ্রুট ডেজার্ট শরীরের শর্করার মাত্রাকে দ্রুত বাড়িয়ে তোলে। সূত্র- নিউজ ১৮

Leave A Reply

Your email address will not be published.