তুমব্রু ও ঘুমধুম সীমান্ত পরিদর্শনে যাচ্ছেন বিজিবি ডিজি

মিয়ানমারের সামরিক জান্তার সঙ্গে সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলোর চলমান সংঘর্ষের মধ্যে সীমান্তবর্তী বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির তুমব্রু ও ঘুমধুম এলাকা পরিদর্শনে যাচ্ছেন বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)-এর নবনিযুক্ত মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মোহাম্মদ আশরাফুজ্জামান সিদ্দিকী।
বুধবার (৭ ফেব্রুয়ারি) বিজিবির জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শরীফুল ইসলাম জানান, আজ বিজিবির নবনিযুক্ত মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মোহাম্মদ আশরাফুজ্জামান সিদ্দিকী বিজিবির কক্সবাজার রিজিয়নের অধীন বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্তের তুমব্রু ও ঘুমধুম সীমান্ত এলাকা পরিদর্শন করবেন।
পরিদর্শন শেষে দুপুর ১২টায় ঘুমধুমে বাংলাদেশ-মিয়ানমার ফ্রেন্ডশিপ ব্রিজে বিজিবি মহাপরিচালক সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলবেন।
বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুমধুম-তুমব্রু সীমান্তের ওপারে মিয়ানমারে সামরিক জান্তার সঙ্গে সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলোর তুমুল লড়াই চলছে। সংঘর্ষের মধ্যে মিয়ানমার থেকে আসা গুলিতে মঙ্গলবার বান্দরবানে আরও এক বাংলাদেশি আহত হন।
এর আগে সোমবার ঘুমধুম সীমান্তের জলপাইতলীতে মিয়ানমার থেকে ছোড়া মর্টার শেলের আঘাতে দুজন নিহত হন। এ ঘটনায় কড়া প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ।
এদিকে মিয়ানমারের অভ্যন্তরে চলমান সংঘর্ষে জীবন বাঁচাতে গতকাল (মঙ্গলবার) পর্যন্ত ২৬৪ জন বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছেন। তাদের মধ্যে দেশটির সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড পুলিশের (বিজিপি) সদস্য, সেনা সদস্য, পুলিশ সদস্য, ইমিগ্রেশন সদস্য ও বেসামরিক নাগরিক রয়েছেন।
এছাড়া দেশটিতে সংঘাত চলাকালে মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) নতুন করে ৬৫ জন রোহিঙ্গা নাফ নদী পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের চেষ্টা করছিলেন। টেকনাফে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) তাদের পুশব্যাক করেছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.