মধুর হাড়ি অক্ষত রাখার সব চেষ্টার ব্যর্থ-অবশেষে পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তার বদলি

এম.শিবলী সাদেক পেকুয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি: গত ৩০ জানুয়ারি তারিখ সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মোহাম্মদ ইকবাল হোসেনের স্বাক্ষরে পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবারপরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. মহিউদ্দিন মাজেদ চৌধুরীর বদলির প্রজ্ঞাপন জারি করেন।

উক্ত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. মহিউদ্দিন মাজেদ চৌধুরীকে ১২ ফেব্রুয়ারি টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এনেস্থেসিওলজি বিভাগের জুনিয়র কনসালটেন্ট হিসেবে যোগদান করবেন অন্যতায় ১৩ ফেব্রুয়ারি চাকরি থেকে অবমুক্ত হিসেবে গণ্য হবে।

সরকারের এমন আদেশকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে সরকারের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের জারিকৃত এ আদেশকে তোয়াক্কা না করে পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়মিত অফিস করে যাচ্ছেন তিনি। বদলি ঠেকাতে হাসপাতালের রোগি দিয়ে করেছে নাটকীয় মানববন্ধন ঘুরেফিরে একই কর্মস্থলে থাকতে ম্যানেজ করার চেষ্টা করছেন উপর মহলকে।

এরই মধ্যে গত ১৩মার্চ স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মোহাম্মদ ইকবাল হোসেনের স্বাক্ষরে আরো একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেন। উক্ত প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ রয়েছে ১৩মার্চ এর মধ্যে জুনিয়র কনসালটেন্ট (এ্যানেসথেসিয়া) চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যোগদান করবেন। অন্যথায় ১৯মার্চ তৎক্ষণিক অবমুক্ত হয়েছে বলে গণ্য হবে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ডা. মো. মহিউদ্দিন মাজেদ চৌধুরী বলেন, টেকনাফ থেকে আমার বাড়ি দূরে হওয়ায় পদায়নটা একটু কাছাকাছি দেওয়ার জন্য সিনিয়র সচিব বরাবর একটি আবেদন করেছি। ঐ আবেদনের পেক্ষিতে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পদায়ন হয়েছে , ইনশাআল্লাহ আগামি ১৮-১৯ তারিখ নতুন কর্মস্থলে যোগদান করব।

Leave A Reply

Your email address will not be published.